বিদ্রোহী ছবির মুক্তি সামনে রেখে শাকিব-বুবলীকে নিয়ে আলোচনা

0
172

ইমরুল শাহেদ : নভেল করোনাভাইরাসের আড়ষ্টতা ভেঙ্গে শাকিব-বুবলী অভিনীত বিদ্রোহী মুক্তির দুয়ারে এসে হাজির হয়েছে। কিন্তু বিগত কয়েক মাসে তাদেরকে নিয়ে যেসব আলোচনা হয়েছে তার বেশির ভাগই ইতিবাচক। এই সময়টাতে বুবলীর কোনো হদিশ পাওয়া না গেলেও শাকিব খান দৃশ্যপটে ছিলেন। কোভিড-১৯ দুর্যোগে প্রথম সারির শিল্পী ছাড়াও মাঝারি গোছের শিল্পীরা তাদের সাধ্যমত অসহায় শিল্পীদের পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন। সেখানে শাকিব খানের না উচ্চারিত হতে শোনা যায়নি।

কিন্তু বিদ্রোহী ছবির মুক্তিকে সামনে রেখে তার বা শাকিব-বুবলী জুটির জন্য ইতিবাচক প্রচারণার প্রয়োজন। সেসবকে সামনে রেখে একের পর এক ইস্যুকে টেনে আনা হচ্ছে। পাসওয়ার্ড মুক্তির পর শাকিব খানের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকে চারটি ছবির ঘোষণা দেওয়া হয়েছিল। তার থেকে কেবল বীর ছবিটি নির্মিত হয়েছে এবং ছবিটি যথারীতি ব্যবসায় ক্ষেত্রে ব্যর্থ হয়েছে। এখন শোনা যাচ্ছে হিমেল আশরাফ পরিচালিত প্রিয়তমা ছবিটি নির্মিত হবে। বলা হচ্ছে এই ছবিতে বুবলী থাকবে না। বুবলী না থাকার কথা ছিল বীর ছবিটিতেও। মালেক আফসারীকে নিয়ে ঘোষিত পাসওয়ার্ড ২ ছবিটিও আপাতত নির্মাণ না করার কথা বলেছেন পরিচালক। বডিউল আলম খোকনকে নিয়ে ফাইটার নামে যে ছবিটি হওয়ার কথা ছিল, সেটিও হচ্ছে না। পরিবর্তে জাহারা মিতু ও শাকিব খানকে নিয়ে বদিউল আলম খোকন আগুন নামে একটি ছবির কাজ শুরু করেছিলেন। সেটির কাজ দীর্ঘদিন থেকেই বন্ধ আছে।

এছাড়া শাকিব খান ২০০ সিনেমা হলকে ডিজিটাল করার কথা ঘোষণা করলেও সেটাও এখন স্থগিত আছে। অন্যদিকে বুবলী ক্যাসিনো নামে যে ছবিটিতে কাজ করছেন সেটির নায়ক হচ্ছেন নীরব। শোনা যায়, নীরবের সঙ্গে বুবলীর এ ছবিটির নেপথ্য কারিগরও শাকিব খান। বুবলীর আরো একটি ছবি মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে। ছবিটির নাম একটু প্রেম দরকার। শাকিব-বুবলী অভিনীত এ পর্যন্ত ৮টি ছবি মুক্তি পেয়েছে, যার বিস্তার বসগিরি থেকে পাসওয়ার্ড পর্যন্ত। কিন্তু শাকিব যদি বুবলীকে ছাড়েন তাহলে সেটা হবে নিতান্তই শাকিবের ক্যারিয়ারের স্বার্থে। চলচ্চিত্রের জন্য এটা কোনো অপরিহার্য বিষয় যেমন নয়, তেমনি তাদের জন্য চলচ্চিত্রের উপকার বা অপকার কোনোটাই হবে না। এ বিষয়টিকে এতো গুরুত্ব কেন দেওয়া হচ্ছে, সেটাই কারো বোধগম্য নয় বলে মন্তব্য করেছেন একজন পরিচালক।

আপনার মতামত লিখুন :