নাটকেই স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করছেন চিত্রনায়িকা মৌমিতা মৌ

0
184
ইমরুল শাহেদ : চিত্রনায়িকা মৌমিতা মৌ এখন ঈদের নাটক নিয়ে ব্যস্ত। ঈদের নাটকের কাজ নিয়ে গত কয়েকদিন থেকে তার ব্যস্ত সময় কাটছে বলে জানালেন। তিনি ইতোমধ্যে দুটি নাটকের কাজ করেছেন এফডিসির উল্টো দিকের প্রিয়াংকা শুটিং হাউজে। এর মধ্যে একটি হলো নাট্যনির্মাতা আদিত্য জনি পরিচালিত টু-লেট পার্টনার। সাত পর্বের এই নাটকটি প্রচারিত হবে নাগরিক টিভিতে। এই নাটকটি রচনা করেছেন মির্জা রাকিব। এই নাটকটিতে মৌমিতা ছাড়াও কাজ করছেন প্রকৃতি, সায়মা রুশা, আশিক, আরফান, রেবেকা প্রমূখ। এছাড়া তিনি মাইনুল হোসেন খোকনের সোহরাব রুস্তম, সাদেক সিদ্দিকীর জামাই সাহেব এবং মীর সাব্বিরের মুক্ত ধারাবাহিক দাদো-তে কাজ করছেন। তিনি বলেন, ‘নাটকে কাজ করতে আমার ভালোই লাগছে। ভাবছি চলচ্চিত্রের পাশাপাশি নাটকে নিয়মিত কাজ করব।’ মৌমিতা এ পর্যন্ত ১০টি ছবিতে কাজ করেছেন। এর মধ্যে ছয়টি ছবি মুক্তি পেয়েছে। চারটির কাজ শেষ করেছেন। পরিচালক মিজানুর রহমান মিজানের দুটি ছবি – রাগী ও তোলপাড়, তাজু কামরুলের রক্তাক্ত সুলতানা ও তাজুল ইসলামের গোপন সংকেত রয়েছে মুক্তি না পাওয়া ছবিগুলোর মধ্যে। তবে জানা গেছে, তার পরিবারের সিনেমায় কাজ করার চেয়ে নাটকে কাজ করার ব্যাপারে আগ্রহ বেশি। নাটকে অভিনয়ের মাধ্যমে তিনি পরিবারের আকাংখাই পূরণ করছেন বলে ধরে নেওয়া যায়। ইডেন তেকে স্নাতকোত্তর করা মৌমিতার ওপর বিয়ের ব্যাপারেও চাপ আছে, যা এখন পর্যন্ত তিনি এড়িয়ে যেতে সমর্থ হয়েছেন।
২০১৩ সালে মৌমিতা মৌ অভিনীত প্রথম সিনেমা কালাম কায়সার পরিচালিত ‘তোমারই আছি তোমারই থাকবো’ মুক্তি পায়। এরপর একে একে মুক্তি পায় রাজু চৌধুরীর ‘তুই শুধু আমার’, সায়মন তারিকের ‘মাটির পরী’, ফিরোজ খান প্রিন্সের ‘মাস্তানী’, মালেক আফসারীর ‘অন্তর্জ্বালা’ ও বদিউল আলম খোকনের ‘অন্ধকার জগৎ’। তবে মৌমিতা মৌ প্রথম অভিনয় করেন ফেরদৌস ওয়াহিদের ‘কুসুমপুরের গল্প’ ছবিতে।

 

আপনার মতামত লিখুন :