‘একটা বউ সামলাতে পারে না আবার অন্যকে জ্ঞান দেয়!’

0
35

মানুষ শত্রুকে কত রকমের আক্রমণই না করে! হিতাহিত জ্ঞান হারিয়ে ফেলা মানুষ কোনো কিছুরই পরোয়া করেন না। তারই প্রমাণ দিয়ে চলছেন বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউত। কট্টর বিজেপিপ্রেমী এই অভিনেত্রী সরকারের তোষামোদ করে পেয়ে গেছেন ‘পদ্মশ্রী’র মতো রাষ্ট্রীয় পদক।

যা তাকে আস্কারা দিয়েছে বেপরোয়া থেকে বেয়াদব হতে। এমনিতে ভালো অভিনেত্রী হয়েও বলিউডে কোনো ভালো বন্ধু নেই কঙ্গনার। নানা সময় তিনি আক্রমণ করেছেন ইন্ডাস্ট্রির অনেক সম্মানী মানুষদের, যা তাকে বলা চলে একাকীই করে দিয়েছে বি টাউনে। সম্প্রতি তিনি সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুকে ইস্যু বানিয়ে যাকে ইচ্ছে তাকে ধুয়ে দিচ্ছেন।

তাকে সতর্ক করেই বন্ধুসুলভ বার্তা পাঠিয়েছিলেন বলিউড নির্মাতা অনুরাগ ক্যাশপ। সেজন্য ‘বম্বে ভেলভেট’ পরিচালককে এবার অপমানের গোলা ছুড়ে দিল কঙ্গনার টিম।

অনুরাগের সঙ্গে কিন্তু সম্পর্ক খারাপ ছিল না কঙ্গনা রানাউতের। সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুই যেন সব চেনা গল্প পাল্টে দিল। সম্প্রতি বলিউডের স্বজনপোষণ নিয়ে বেশ সরব ‘কুইন’। শাহরুখ-সালমান-করণ থেকে তাপসী পান্নু-মহেশ ভাট, তার রোষানল থেকে বাদ পড়ছেন না কেউই।

বাকি ছিলেন অনুরাগ কাশ্যপ। সম্প্রতি এক চ্যানেলের সাক্ষাৎকারে তাকেও ‘মিনি মহেশ ভাট’ তকমা দিলেন কঙ্গনা। কী কারণে ‘বন্ধু’ হয়ে গেলেন ‘শত্রু’? কঙ্গনার টিমের দাবি, এর আগে নাকি একগুচ্ছে টুইটে পরিচালক অভিনেত্রীর উদ্দেশ্যে বলেন, কঙ্গনাকে উসকাচ্ছেন কিছু সুযোগসন্ধানী মানুষ। আসলে কঙ্গনা একদম একা। বলিউডে তার কোনো শুভাকাঙ্ক্ষী নেই। কিছু লোক কঙ্গনাকে মাঠে নামিয়ে মজা দেখছেন। বাস্তবে এর ফলে অভিনেত্রীরই ক্ষতি করছেন।

কেন তিনি এ কথা বললেন, তাই নিয়ে শুরু হলো বাগযুদ্ধ। অভিনেত্রীর টিম বাঁকা কথা ছোড়ে পরিচালকের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘একটা বউ সামলাতে পারেনি যে লোক সে এসেছে অন্যকে জ্ঞান দিতে!’

সোশ্যাল মিডিয়ায় এভাবে ট্রলের শিকার হয়ে অবশ্য ছেড়ে কথা বলেননি অনুরাগও। একদম স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিমায় কেটে কেটে জবাব দিয়েছেন, ‘নারীকে সামলাতে হয় না! নারী নিজেকে নিজেই সামলে নেওয়ার জন্য যথেষ্ট। শুধু তাই নয়, যারা আমাকে এত কথা শোনাচ্ছেন তাদের এবং তাদের পুরো পরিবার সামলানোর ক্ষমতা রাখেন একজন নারী।’

এরপর অনুরাগ মুখ খোলেন নিজের অতীত জীবন নিয়ে। প্রাক্তন স্ত্রী কালকির চলে যাওয়ার ঘটনা নিজের মুখেই স্বীকার করে বলেন, ‘উনি তো আমার কেনা দাসী ছিলেন না যে ধরে বেঁধে রাখবো। মতে মেলেনি। কালকি তাই চলে গেছে। কিন্তু আপনাদের স্বামী/বউ বাড়িতে আছেন তো?’

আপনার মতামত লিখুন :