মাস্ক পরে এই ভুলগুলো করছেন না তো!

0
48

করোনাভাইরাস নামক আতঙ্কের সঙ্গে মানুষ অভ্যস্ত হতে শুরু করেছে ঠিকই, কিন্তু করোনা তার দাপট এখনও বজায় রাখছে। প্রতিদিনই নতুন আক্রান্তের খবর মিলছে, বাড়ছে মৃতের সংখ্যাও। তবে এর ভেতরেই জীবন ও জীবিকার তাগিদে কাজ করে যেতে হচ্ছে মানুষকে। বের হতে হচ্ছে ঘরের বাইরে।

করোনার বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে সচেতন হতে হবে নিজেকেই। বারবার হাত পরিষ্কার করা, বাইরে বের হলে মাস্ক পরার কথা আমরা সবাই জেনেছি। কিন্তু এগুলোই শেষ কথা নয়। নিজেকে জীবাণুমুক্ত রাখতে সব অবস্থায়ই সতর্ক থাকতে হবে। মাস্ক পরলেও কিছু সাধারণ ভুল বিপদের কারণ হতে পারে।

jagonews24

মাস্ক পরা কতটা গুরুত্বপূর্ণ তা সঠিকভাবে অনুধাবন করতে পারছেন না বেশিরভাগ মানুষই। তাই মাস্ক কোনোরকম পরলেও বেশিরভাগ সময় তা হয়তো কানে ঝুলিয়ে রাখছেন কিংবা থুতনিতে আটকে রাখছেন। এরকম ভুল কখনোই করা উচিত নয়। আপনি যদি এমন উদাসীন থাকেন তবে করোনায় সংক্রমিত হওয়ার ভয় অনেক বেড়ে যাবে।

মাস্ক পরার সময় খেয়াল যাতে মুখ ও নাক পুরোপুরি ঢাকে। মাস্ক পরার পরেও যদি নাক বা মুখ খোলা রাখেন তবে মাস্ক পরার কোনো উপযোগিতা থাকে না। মাস্ক যেন নাকের ওপর থেকে শুরু করে পুরো মুখ ভালোভাবে ঢাকতে পারে। মাস্ক কেনার সময় সেটি চওড়া কি-না তা দেখে কিনবেন।

অনেকে বেশিদিন ব্যবহারের জন্য একই মাস্ক উল্টো করে পরে থাকেন। কিন্তু এতে সুরক্ষা তো হয়-ই না, বরং আরও ক্ষতিকর। যেকোনো মেডিক্যাল মাস্ক বা সার্জিক্যাল মাস্কের ভেতর ও বাইরের দিক আলাদা করে নির্দিষ্ট থাকে। সেভাবে মাস্ক পরা উচিত। আপনি যদি ঘরে তৈরি সুতির মাস্ক পরেন, তাহলে খেয়াল রাখবেন কোন দিকটা বাইরে পরছেন আর কোনটা ভেতরে।

jagonews24

মাস্ক যেন মুখের সঙ্গে মিশে থাকে সেদিকে খেয়াল রাখবেন। ঢিলেঢালা মাস্ক ব্যবহার করবেন না। ঢিলে হলে তা ঠিক করার জন্য বারবার মুখে হাত দিতে হবে। ফলে হাতের ধুলো ময়লা মাস্কে লেগে যাবে।

যে ধরনের মাস্কই ব্যবহার করুন না কেন, প্রতিবার ব্যবহারের ভালো করে স্যানিটাইজ করে নিন। যেগুলো ধোয়া যায় সেগুলো সাবান-পানি দিয়ে ধুয়ে ভালো করে রোদে শুকিয়ে নিন। নোংরা বা ভেজা মাস্ক কখনো ব্যবহার করবেন না।

আপনার মতামত লিখুন :