বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ, অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবরে পালাল যুবক

0
36

বরিশালের উজিরপুর পৌর এলাকায় বিয়ের প্রলোভনে এক তরুণীকে (১৮) ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ধর্ষণের ফলে তরুণী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ার খবর জানাজানি হলে এলাকা ছেড়ে পালিয়েছেন যুবক স্বপন হাওলাদার (২০)।

স্বপন হাওলাদার উজিরপুর পৌরসভার ১ নম্বর ওয়ার্ডের দক্ষিণ মাদার্শী গ্রামের বাবুল হাওলাদারের ছেলে। ভুক্তভোগী তরুণীর বাড়ি একই এলাকায়। ওই তরুণী স্থানীয় কলেজের এইচএসসি প্রথমবর্ষের ছাত্রী।

স্থানীয় সূত্র জানায়, সনাতন ধর্মাবলম্বী ওই তরুণীকে কলেজে আসা-যাওয়ার পথে উত্ত্যক্ত করতেন স্বপন হাওলাদার। একপর্যায়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে প্রেমের সম্পর্ক গড়েন। পরে ছাত্রীকে বিভিন্ন স্থানে ঘুরতে নিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করেন স্বপন। বিয়ের কথা বলে ধর্ষণে পাঁচ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন ছাত্রী।

শারীরিক পরিবর্তন দেখে তরুণীর পরিবারের সন্দেহ হয়। পরে পরিবারকে বিষয়টি খুলে বলেন। তরুণীর পরিবারের সদস্যরা ঘটনা জানাতে ৯ অক্টোবর স্বপন হাওলাদারের বাড়ি যান। বাড়িতে তরুণীর উপস্থিতি টের পেয়ে স্বপন হাওলাদার পালিয়ে যান।

এরপর থেকে বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করে আসছেন স্বপন হাওলাদারের স্বজনরা। এ ঘটনায় তরুণীর বাবা মামলা করার উদ্যোগ নিলে তাকে হুমকি দিচ্ছেন স্বপন হাওলাদারের বাবা বাবুল হাওলাদার।

স্বপন হাওলাদারের বাবা বাবুল হাওলাদার বলেন, আমার ছেলে কয়েকদিন আগে বেড়াতে গেছে। ছেলে ফিরে এলে তার কাছে সঠিক ঘটনা জানা যাবে। অভিযোগ সত্য হলে ওই মেয়ের সঙ্গে ছেলের বিয়ে দিয়ে সমস্যা সমাধান করব।

উজিরপুর মডেল থানা পুলিশের ওসি জিয়াউল আহসান বলেন, এ ধরনের কোনো ঘটনা আমার জানা নেই। কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার মতামত লিখুন :