না’গঞ্জে বাংলাদেশ প্রবাসীলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির জেলাভিত্তিক দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

0
71

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকী তথা মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের ৩য় তলায় সিনেমুন চাইনিজ রেস্টুরেন্টে বাংলাদেশ প্রবাসী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির উদ্যোগে জেলাভিত্তিক দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে সোনারগাঁয়ের বিশিষ্ট শিল্পপতি রোটারিয়ান আলহাজ¦ আবুল খায়ের মুন্সি ও উদ্বোধক হিসেবে বাংলাদেশ প্রবাসী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির আহবায়ক বীরমুক্তিযোদ্ধা ইঞ্জিনিয়ার আলহাজ¦ লুৎফর রহমান উপস্থিত থেকে গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য প্রদান করেন। তাছাড়া বাংলাদেশ প্রবাসী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম আহবায়ক একেএম খালেকুজ্জামান (কবি জামান ভূঁইয়ার) সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন বাংলাদেশ প্রবাসী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সচিব হাজী মাসুদ খাঁন। বাংলাদেশ প্রবাসী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য রোটারিয়ান মাসুদ হোসেনের আয়োজনে প্রধান বক্তা হিসেবে বাংলাদেশ প্রবাসী লীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক শেখ জামাল উদ্দিন, বিশেষ অতিথি হিসেবে বাংলাদেশ প্রবাসী লীগের যুগ্ম আহবায়ক নূরে আলম স্বপন, যুগ্ম আহবায়ক ফিরোজ হাওলাদার, বীরমুক্তিযোদ্ধা আহসান উল্লাহ, নোয়াগাঁও ইউপি’র সাবেক চেয়ারম্যান বীরমুক্তিযোদ্ধা দেওয়ান উদ্দিন চুন্নু ও ব্যাংকার আল আমিন প্রিন্স উপস্থিত ছিলেন। আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে উক্ত অনুষ্ঠানে এডভোকেট মৌসুমী বেগম ঢাকাইয়া, এডভোকেট রাশিদা পারভীন, লাকিয়া ইসলাম, নারায়ণগঞ্জ জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ নেত্রী সেলিনা রুহুল, পরিবহন শ্রমিক নেতা সামছুল হক, প্রবাসী লীগ নেতা আতিকুল ইসলাম, তাইজুল ইসলাম, সারোয়ার হোসেন টিপু, সাকিব আল হাসান, ফরিদ আহম্মেদ, রবিউল ইসলাম সহ উক্ত সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটি ও নারায়ণগঞ্জ অঞ্চলের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। উপস্থিতরা আলোচনা সভা শেষে দোয়া মাহফিল ও এক প্রীতিভোজে অংশ নেন। প্রধান অতিথির বক্তৃতায় আবুল খায়ের মুন্সি বলেন, ‘আমি গর্বিত কারণ আমি নারায়ণগঞ্জের সন্তান। নারায়ণগঞ্জের ইতিহাস ও ঐতিহ্য ঢাকার চেয়েও সমৃদ্ধ। ঐতিহাসিক ৬দফা আন্দোলনের প্রস্তুতি অত্র জেলা থেকেই নেয়া হয়েছিলো। বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে হত্যা করেও ষড়যন্ত্রকারীরা বসে থাকেনি। তারা ২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলা সহ অসংখ্যবার জননেত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে। আল্লাহ তাকে বারংবার বাঁচিয়ে দিয়েছেন আমাদের সকলের মুখে হাঁসি ফোটানোর জন্য। বঙ্গবন্ধুর ডাকে বাংলাদেশ স্বাধীন হয়েছে। আর স্বাধীনতার পর দেশকে কিভাবে স্বনির্ভর করা যায় সে ভাবনা বঙ্গবন্ধু সর্বদা ভাবতেন। আমাদের সকল উৎকর্ষ ও উন্নয়নের পিছনে বঙ্গবন্ধুর অবদান রয়েছে। দেশে ও বিদেশে প্রবাসী লীগের কার্যক্রম ছড়িয়ে পড়বে এবং প্রবাসীদের অধিকার আদায়ে ও তাদের সুখে-দুঃখে প্রবাসী লীগ সর্বদা কাজ করে যাবে বলে আমার প্রত্যাশা’। সভাপতির বক্তৃতায় একেএম খালেকুজ্জামান (কবি জামান ভূঁইয়া) বলেন, ‘বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের জন্ম হয়েছে অত্র নারায়ণগঞ্জ জেলায়। যারা প্রতিষ্ঠালগ্নে কাজ করেছেন তাদের বিন¤্র শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করছি এবং মহান নেতা একেএম শামসুজ্জোহা ও আলী আহম্মেদ চুনকাকে বিশেষ শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করছি। তৃণমূল পর্যায়ের অবহেলীত প্রবাসী ভাই ও বোন সহ তাদের পরিবার, বিধবা, তালাকপ্রাপ্ত ও নির্যাতিত নারীদের দক্ষতা উন্নয়নের মাধ্যমে আয় বৃদ্ধিমূলক কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত ও কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা এবং বঙ্গবন্ধুর আদর্শে উজ্জীবিত হয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার ক্ষেত্রে আসুন প্রবাসী লীগের মাধ্যমে সবাই ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করি’।

আপনার মতামত লিখুন :