ভোর থেকে কড়াকড়িতে শুরু ৭ দিনের ২১ দফা বিধিনিষেধ

0
85

সম্প্রতি দেশের করোনা মহামারী পরিস্থিতির মারাত্মক অবনতি হয়েছে। গত কয়েক দিনে করোনায় দৈনিক সর্বোচ্চ সংক্রমণ ও মৃত্যুর রেকর্ড হয়েছে। দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের হাসপাতালগুলোতে শয্যা ঘাটতি দেখা দিয়েছে। এই কারণে করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) সংক্রমণের বিস্তার রোধে সর্বাত্মক লকডাউনের আদলে দেওয়া ‘কঠোর বিধিনিষেধ’ বাস্তবায়নে কড়া অবস্থানে রয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

বৃহস্পতিবার সকাল ৬টা থেকে শুরু হওয়া ২১ দফা বিধিনিষেধ বাস্তবায়নে তাদের তৎপর দেখা গেছে।

রাজধানীর মোড়ে মোড়ে এবং গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টগুলোতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের সরব উপস্থিতিতে দেখা গেছে। যান চলাচল ছিল কম। বন্ধ ছিল অধিকাংশ দোকানপাট। এর আগে বুধবার জারি করা ২১ দফা নির্দেশনার আদেশে বলা হয়েছে, বৃহস্পতিবার সকাল ৬টা থেকে ৭ জুলাই মধ্যরাত পর্যন্ত কঠোর বিধিনিষেধ বলবৎ থাকবে। এসব বিধিনিষেধ বাস্তবায়নে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সঙ্গে সেনাবাহিনীও মাঠে থাকবে।

‘ইন এইড টু সিভিল পাওয়ার’-এর আওতায় আরোপিত বিধিনিষেধ বাস্তবায়নের জন্য এ সময় সারা দেশে সশস্ত্র বাহিনী মোতায়েন থাকবে। জেলা ম্যাজিস্ট্রেটরা স্থানীয়ভাবে সেনা মোতায়েনের বিষয়ে প্রয়োজনীয় সমন্বয় করবেন।

গত বছর দেশে করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের পর বিধিনিষেধ দেওয়া হলে তখনো সেনা মোতায়েন হয়েছিল।

এদিকে সরকারি সূত্রগুলো বলছে, প্রথমে সাত দিনের কঠোর বিধিনিষেধ থাকলেও তা আরও এক সপ্তাহ বাড়ানোর পরিকল্পনা রয়েছে।

করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে গত সোমবার থেকেই সারা দেশে গণপরিবহন, শপিং মল, মার্কেটসহ বেশ কিছু কার্যক্রম বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :