ক্রিকেটার বিয়ে করে অভিনয় ছেড়ে দিয়েছেন যেসব অভিনেত্রী

0
63

ক্রিকেটারদের সঙ্গে শোবিজের তারকাদের প্রেম-বিয়ের ঘটনা বহু পুরনো। বলিউডে এই তালিকা সবচেয়ে সমৃদ্ধ। দেশি ক্রিকেটার তো বটেই, বিদেশি ক্রিকেট তারকাদের সঙ্গেও ভারতীয় অনেক অভিনেত্রী সম্পর্কে জড়িয়েছেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজ কিংবদন্তি ভিভ রিচার্ডসকে বিয়েও করেছেন বলিউড অভিনেত্রী নীনা গুপ্ত। তাদের আছে এক কন্যাও।

ক্রিকেটার-অভিনেত্রীর এই রসায়ন এখনো চলমান। অনেক অভিনেত্রীই নতুন করে ক্রিকেটারদের প্রেমে পড়ছেন, বিয়েও করছেন।

এ তালিকায় এমন অনেকে আছেন যারা ক্রিকেটারের ঘরনী হওয়ার পর আর ক্যামেরার সামনে দাঁড়াননি। একেবারেই সিনেমা বা সবরকম অভিনয়কে গুডবাই বলে দিয়েছেন।

আজহারউদ্দিন ও সঙ্গীতা বিজলানি
এ তালিকায় সবার আগেই নেয়া যায় ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক মুহাম্মদ আজহারউদ্দিন ও সঙ্গীতা বিজলানির নাম। দীর্ঘদিন প্রেম করার পর ১৯৯৬ সালে একে অপরকে বিয়ে করেছিলেন আজহার ও সঙ্গীতা। বিয়ের আগে শেষবার মিঠুন চক্রবর্তীর বিপরীতে ‘নির্ভয়’ ছবিতে অভিনয় করেছিলেন সঙ্গীতা বিজলানি। এরপর তাকে আর পর্দায় দেখা যায়নি। তাদের বিবাহ-বিচ্ছেদ হয়ে গেছে ২০১০ সালে।

সাগরিকা ঘাটগে ও জাহির খান
ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন ফাস্ট বোলার জহির খান ২০১৭ সালে বলিউড অভিনেত্রী সাগরিকা ঘাটগেকে বিয়ে করেন। বিয়ের পর অভিনয় জীবনকে বিদায় জানান সাগরিকা। শাহরুখ খানের সুপারহিট ছবি ‘চাক দে ইন্ডিয়া’ -তে অভিনয় করেছিলেন সাগরিকা ঘাটগে।

হ্যাজেল কিচ ও যুবরাজ সিং
২০১৬ সালে বলিউড অভিনেত্রী হ্যাজেল কিচকে বিয়ে করেন ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন তারকা খেলোয়াড় যুবরাজ সিং। হ্যাজেলকে শেষবার দেখা গিয়েছিল ‘বানকি কি ক্রেজি বরাত’ ছবিতে। হ্যাজেল সালমান খানের সঙ্গে ২০১১ সালের হিট ছবি ‘বডিগার্ড’ সিনেমাতেও অভিনয় করেছিলেন।

গীতা বসরা ও হরভজন সিং
২০১৫ সালে বলিউড অভিনেত্রী গীতা বসরাকে বিয়ে করেন ভারতীয় দলের প্রাক্তন স্পিনার হরভজন সিং। আট বছরের দীর্ঘ সম্পর্কের পর ভাজ্জি এবং গীতার বিয়ে হয়। বিয়ের পর অভিনয় দুনিয়াকে বিদায় জানিয়েছেন গীতা। ২০১৬ সালে পাঞ্জাবি ছবি ‘লক’ সিনেমায় শেষবার দেখা গিয়েছিল গীতা বসরাকে।

নাতাশা স্ট্যানকোভিচ ও হার্দিক পান্ডিয়া
ক্যারিয়ার গড়তেই এদেশে এসেছিলেন সার্বিয়ান মডেল-অভিনেত্রী নাতাশা স্ট্যানকোভিচ। আর এখানে এসে ভারতীয় দলের ক্রিকেটার হার্দিক পান্ডিয়ার সঙ্গে তার আলাপ হয়। তারপর প্রেম ও বিয়ে। সংসার পাতার পর আর অভিনয়ে নামেননি নাতাশা। তাকে বলিউডের বহু হিট গানে নাচতে দেখা গেছে। ২০১৪ সালে হিন্দি ছবি ‘সত্যাগ্রহ’ -এর হাত ধরে বলিউডে অভিষেক হয়েছিল নাতাশার। ওয়েব সিরিজ ‘ফ্লেশ’ -এ একটি ক্যামিও চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন, যা গতবছর মার্চে পান্ডিয়ার সঙ্গে তার বাগদানের আগে শুট করা হয়েছিল। ২০২০-র লকডাউনের মধ্যেই বিয়ে সেরে ফেলেন নাতাশা ও হার্দিক।

আপনার মতামত লিখুন :